ওয়ানডেতে টাইগারদের সবচেয়ে বড় জয়

img

বিজটেক২৪ ডটকম: ওয়ানডেতে নিজেদের ইতিহাসের সবচেয়ে বড় জয় পেয়েছে টাইগার বাহিনী। ত্রিদেশীয় সিরিজে শ্রীলঙ্কাকে ১৬৩ রানে হারিয়ে দুই ম্যাচ বাকি রেখে ফাইনালে উঠেছে মাশরাফি বিন মুর্তজার দল। শুক্রবার শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে চণ্ডিকা হাথুরুসিংহের শ্রীলঙ্কাকে পাত্তা দিল না বাংলাদেশ। কোচ হারিয়ে মুষড়ে পড়া তো দূরের কথা, সাবেক কোচকে উল্টো তিক্ত অভিজ্ঞতাই উপহার দিলেন মাশরাফি, সাকিব, তামিমরা। ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচে মাশরাফি বাহিনীর দাপুটে পারফরম্যান্সের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি হাথুরুসিংহের শ্রীলঙ্কা।
প্রথমে ব্যাট করে ৩২০ রান তুলে বাংলাদেশ। জবাবে শ্রীলঙ্কা মাত্র ১৫৭ রানেই অলআউট হয়ে যায়। রানের ব্যবধানে এটাই বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় জয়ের নতুন রেকর্ড। শ্রীলঙ্কা এর আগে কখনোই বাংলাদেশের কাছে ১০০ রানের ব্যবধানে হারেনি। সেই অভিজ্ঞতাও তাদের হলো নতুন করে। দুই দিনের ব্যবধানে জিম্বাবুয়ে ও বাংলাদেশের কাছে হেরে সিরিজেই কোণঠাসা হয়ে পড়ল হাথুরুর দল। মাশরাফি বিন মুর্তজার নেতৃত্বে বাংলাদেশের বোলিং শ্রীলঙ্কাকে রীতিমতো লজ্জা দিয়েছে। প্রথম তিন উইকেটের দুটিই নিয়েছেন মাশরাফি। যদিও আবারও ব্যাটে বলে নায়ক সাকিব আল হাসান। ব্যাট হাতে ৬৭ করার পাশাপাশি বল হাতে নিয়েছেন ৩ উইকেট।
নাসিরকে দিয়েই বোলিংয়ের শুরুটা করেছিল বাংলাদেশ। নাসিরের বলে বোল্ড হন ‘ডেঞ্জারম্যান’ কুশল সিলভা। এরপর অভিজ্ঞ উপুল থারাঙ্গা আর কুশল মেন্ডিস মিলে শুরুর ক্ষতিটা সামলে ওঠার চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু বড় বিপদের কারণ হয়ে ওঠার আগেই থারাঙ্গাকে (২৫) মাহমুদউল্লাহর ক্যাচ বানিয়ে ফেরান অধিনায়ক মাশরাফি। মেন্ডিসও বেশিক্ষণ টেকেননি (দলীয় ৬২ রানে)। মাশরাফির বলেই রুবেলকে ক্যাচ দেন তিনি। ৮২ রানে মোস্তাফিজের বলে বোল্ড হন নিরোশান ডিকভেলা।
৮২ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে ধুঁকতে থাকা শ্রীলঙ্কার জন্য ‘আশা’ হয়ে ছিলেন দিনেশ চান্ডিমাল। এই অভিজ্ঞ ক্রিকেটারকে ‘বিপদ’ হতে দেননি সাকিব। সরাসরি থ্রোতে চান্ডিমালকে রান আউট করে বাংলাদেশকে জয়ের পথে অনেকটাই এগিয়ে দেন। উজ্জীবিত সাকিব পরের ওভারে নিজে বল হাতে এরপর গুঁড়িয়েই দেন শ্রীলঙ্কাকে। আকিলা গুনারত্নে, ওয়ানিদু হাসারাঙ্গাকে পরপর দুই বলে ফেরালেন, দাঁড়ালেন হ্যাটট্রিকের সামনে। তা না হলেও পরে অনেক বার বাংলাদেশের বিপদের কারণ হয়ে দেখা দেয়া, আজও ফণা তুলে দাঁড়ানো থিসারা পেরেরাকে নিয়েছেন।
আর রুবেল নেন দনাঞ্জয়ার উইকেটটি। মাত্র ৫১ রানে শেষ ৫ উইকেট হারিয়ে মাত্র ৩২.২ ওভারে ১৫৭ রানেই অলআউট হয়ে যায় শ্রীলঙ্কা।
প্রথমে ব্যাট করে তামিম ইকবাল ৮৪, সাকিব আল হাসান ৬৭ আর মুশফিকের রহিমের ৬২ রানের উপর ভর করে ৭ উইকেটে ৩২০ রানের পাহাড়সম পুঁজি পায় বাংলাদেশ।

বাংলাদেশ: ৫০ ওভারে ৩২০/৭ (তামিম ৮৪, এনামুল ৩৫, সাকিব ৬৭, মুশফিক ৬২, মাহমুদউল্লাহ ২৪, সাব্বির ২৪*, মাশরাফি ৬, নাসির ০, সাইফ ৬*; লাকমল ০/৬০, প্রদিপ ২/৬৬, দনঞ্জয়া ১/৪০, থিসারা ৩/৬০, গুনারত্নে ১/৩৮, হাসারাঙ্গা ০/৫১)



-->

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked with *

জব